1. akibmahmud2010@gmail.com : akibmahmud :
  2. galib.nyc@gmail.com : galib.nyc :
  3. t.m.a.hasib@gmail.com : t.m.a. hasib : t.m.a. hasib
  4. tahmim0007@gmail.com : newsdesk :
কি কথা হল শেখ হাসিনা-বান কি মুনের? - SheraNews
বুধবার, ১২ অগাস্ট ২০২০, ০৬:৫৩ পূর্বাহ্ন

কি কথা হল শেখ হাসিনা-বান কি মুনের?

সেরা নিউজ
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ৩০ জুলাই, ২০২০

সেরা নিউজ ডেস্ক:

মুজিব বর্ষকে স্মরণ করে ২০২১ সালের ক্লাইমেট ভালনারেবল ফোরাম (সিভিএফ) সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিব ও সিভিএফ প্রেসিডেন্ট বান কি মুন।

বুধবার সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে টেলিফোন করে বান কি মুন এ কথা জানান।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম গণমাধ্যমকে বলেন, আনুমানিক ৬টা ১০ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে টেলিফোন করেন বান কি মুন। সিভিএফ সম্মেলন এবং গ্লোবাল সেন্টার অন অ্যাডাপটেশন কনফারেন্সসহ বিভিন্ন ইস্যুতে তারা প্রায় ১২ মিনিট কথা বলেন।

ইহসানুল করিম বলেন, আগামী সেপ্টেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে গ্লোবাল সেন্টার অন অ্যাডাপটেশন কনফারেন্স অনুষ্ঠিত হবে। এটি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উদ্বোধন করবেন। যেখানে বান কি মুন ভার্চুয়ালি অংশগ্রহণ করবেন।

প্রেস সচিব বলেন, করোনাভাইরাস সংকট এবং সুপার সাইক্লোন আম্পান পরিস্থিতি সাহস ও দক্ষতার সঙ্গে মোকাবেলা করায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রশংসা করেন জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিব বান কি মুন। দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার মানুষকে কোভিড-১৯ মহামারী এবং সাইক্লোন আম্পানের মতো পরিস্থিতি মোকাবেলায় সক্ষম করে গড়ে তোলার পরামর্শ দেন বান কি মুন।

দ্বিতীয়বারের মতো সিভিএফের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নিতে রাজি হওয়ায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানান বান কি মুন।

বাংলাদেশে নিউরো ডেভেলপমেন্ট ডিসঅর্ডার অ্যান্ড অটিজমবিষয়ক জাতীয় কমিটির চেয়ারপারসন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মেয়ে সায়মা ওয়াজেদ হোসেন সিভিএফের থিমেটিক অ্যাম্বাসেডর হওয়ায় অভিনন্দন জানান বান কি মুন। টেলিফোন করায় বান কি মুনকে ধন্যবাদ জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

জলবায়ু পরিবর্তনের ঝুঁকিতে থাকা ৪৮টি দেশের সংগঠন ক্লাইমেট ভালনারেবল ফোরাম (সিভিএফ)। গেল ডিসেম্বরে স্পেনের রাজধানী মাদ্রিদে ২৫তম বার্ষিক কনফারেন্স অব পার্টিস (কপ-২৫) সম্মেলনের উদ্বোধনী দিনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে সিভিএফের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নিতে অনুরোধ করেন মার্শাল দ্বীপপুঞ্জের প্রেসিডেন্ট হিলডা হাইন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হিলডা হাইনের প্রস্তাবে রাজি হন।

 

সেরা নিউজ/আকিব

Please Share This Post in Your Social Media

এই ক্যাটাগরীর আরও সংবাদ
© All rights reserved by Shera News
Developed BY: Transfotech